in ,

ক্রিসটিয়ানো রোনালদোর গাড়ির সংগ্রহশালা – নতুন কী কী যোগ হলো

ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো গ্রীষ্মকালীন ট্রান্সফার শেষে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে ফিরে আসেন। পর্তুগিজ এই তারকা তার মোহনীয় গাড়ির কালেকশনে নতুন কাউকে যোগ করতে বিন্দুমাত্র সময়ও নষ্ট করেননি। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের এই তারকা তার কালেকশনে ১৬৪ হাজার ইউরো মূল্যের বেন্টলি ফ্লাইং স্পার কার যোগ করেছেন।

মডেলটিকে স্বয়ং বেন্টলি কোম্পানি ‘বিলাসিতার চূড়ান্ত’ হিসাবে আখ্যা দিয়েছে। কিন্তু তাতে কি? পর্তুগিজ এই সুপারস্টারকে গত সপ্তাহে ক্লাবের দ্য এওএন ক্যারিংটন প্রশিক্ষণ কমপ্লেক্সে এটি চালাতে দেখা গেছে।

৩৬ বছর বয়সী বিশ্ব ফুটবলের সবচেয়ে বেশি পারিশ্রমিক প্রাপ্ত খেলোয়াড়দের একজন ক্রিসটিয়ানো রোনালদো, তার কোটি কোটি টাকার সম্পদের একটি অংশ মন মাতানো সব গাড়ির সংগ্রহ করতেই ব্যয় করেছেন। একেকজনের একেক নেশা, কারো স্বর্ণ গহনা, কারো প্রভাব আর বিত্তের, কিন্তু আমাদের রোনালদোর নেশা হলো গাড়ি।

জুভেন্টাস থেকে ফরোয়ার্ডের ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে ফিরে আসার এক মাসেরও কম সময়ের মধ্যে নতুন কিছু গাড়ী কিনেছেন এই তারকা। যদিও সুপারকারের প্রতি রোনালদোর বেশ দুর্বলতা রয়েছে, তা তো ভক্তদের অজানা নয়। তৃতীয় প্রজন্মের বেন্টলি ফ্লাইং স্পারকে ২০১৯ সালের জ্জুনে উন্নত নকশা, প্রযুক্তি এবং যন্ত্রপাতি দিয়ে উপস্থাপন করা হয়েছিল যাতে এটিকে সবচেয়ে কাঙ্ক্ষিত মডেল হিসাবে স্থান দেওয়া যায়।

আশ্চর্যজনকভাবে, বেন্টলে ফ্লাইং স্পারকে বেশিরভাগ লোকের জন্য অপ্রাপ্য এবং বাজেটের বাইরে বলে মনে করা হয়েছে। যদিও সত্যই বটে, আসলেই কে কিনতে যাবে এই মহার্ঘ গাড়ি? তার পক্ষেই বেন্টির এই কার স্বপ্ন দেখা সম্ভব যার সাপ্তাহিক বেতন আর যে কোনো খেলোয়াড়ের চেয়ে পাঁচগুণ বেশি। কিন্তু রোনালদোর কাছে এটিতে দুধ-ভাত।

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ফরোয়ার্ডের গাড়ির একটি অবিশ্বাস্য সংগ্রহ রয়েছে যার মধ্যে রয়েছে তিনটি ফেরারি, দুটি ল্যাম্বোরগিনি, দুটি বুগাট্টি শেরন, দুটি ম্যাকলারেন, দুটি রোলস রয়েস, একটি পোর্শ ৯১১ টার্বো এস, একটি কোয়েনিজেগ সিসিএক্স, একটি বেন্টলি কন্টিনেন্টাল জিটি স্পিড, একটি রেঞ্জ রোভার স্পোর্ট এসভিআর , বেশ কয়েকটি অডি এবং মার্সিডিজ-এএমজি সহ।

তারকার সবচেয়ে দামি গাড়ির মধ্যে রয়েছে একটি ফেরারি মোনজা যার মূল্য ১.৪ মিলিয়ন ইউরো, একটি বুগাট্টি ভেরন গ্র্যান্ড স্পোর্ট যার মূল্য ৭১.৭ মিলিয়ন এবং ২.১৫ মিলিয়ন ইউরোর বুগাট্টি শেরন।

তার বান্ধবী জর্জিনা রদ্রিগেজ রোনালদোর আগ্রহী মোটর চালানোর আগ্রহ সম্পর্কে সব জানেন এবং তাকে একটি ব্রাবাস জি -ওয়াগন কিনেছিলেন – যার দাম ৬০০ হাজার ইউরো। গত বছর তার জন্মদিনের জন্য কিছুটা অসাধারণ উপহার হিসেবে।

যাই হোক, রোনালদোর গাড়ি সংগ্রহের মধ্যমণি বুগাট্টি সেন্টোডিসি – একটি সীমিত সংস্করণ যার দাম ৮.৫ মিলিয়ন ইউরো, যা সারা পৃথিবীতে মাত্র দশটি তৈরি করা হয়েছিল।

তার অন্যান্য দুটি বুগাট্টি – যার সম্মিলিত মূল্য ৩.৮৫ মিলিয়ন ইউরো, এতে আছে ‘সিআর 7’ এমব্রয়ডারি করা হেডরেস্ট। কিন্তু সর্বশেষ মডেলটি বুগাট্টি ইবি ১১০ এর প্রতি শ্রদ্ধা রেখে বলা হয় এবং যার পাঁচবারের ব্যালন ডি এর একটি চমকপ্রদ মূল্য রয়েছে অথবা বিজয়ীর অবিশ্বাস্য সংগ্রহ।

২০১৬ সালে, রোনালদো ল্যাম্বোরগিনি অ্যাভেন্তাদোর কিনেছিলেন, যার মূল্য মাত্র ২৬০ হাজার ইউরো – যা উচ্চমানের ইতালীয় গাড়ি ডিজাইনারের সবচেয়ে বিখ্যাত মডেল।

২০১৭ সালে, খেলোয়াড় একটি ফেরারি এফ ১২ টিডিএফ কিনেছিলেন, যার মূল্য ৩৫০ হাজার ইউরো- যা কেবলমাত্র ৮০০টি মডেলের মধ্যে একটি।

আরেকটি সংগ্রাহকের আইটেম হলো ব্রাজিলিয়ান রেসিং ড্রাইভার আইর্টন সেনার প্রতি শ্রদ্ধা, কারণ রোনালদো ম্যাকলারেন সেনার উপর ১ মিলিয়ন পাউন্ড ছড়িয়ে দিয়েছেন – যার মধ্যে মাত্র ৫০০টি মডেল তৈরি হয়েছিল। পর্তুগিজরা সামনের বছরগুলোতে তার সংগ্রহে আরো রত্ন যোগ করে দেখে অবাক হবেন না।

\

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *